লাখ লাখ টাকার রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার

চাটখিলে বিদ্যুতের বিল আদায়ে অনিয়ম, লাখ লাখ টাকার রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার

দূর্নীতি চিত্র

জসিম মাহমুদ, চাটখিল (নোয়াখালী):
চাটখিলে ব্যাংকের মাধ্যমে পল্লী বিদ্যুতের বিল আদায়ে অনিয়ম লাখ লাখ টাকার রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার। এটা দেখার মত কেউ নেই? তবে পল্লী বিদ্যুৎ অফিস বলেছে অভিযোগ পেলে বিষয়টি তারা তদন্ত করে দেখবে।
৫৫ হাজার গ্রাহকের কাছ থেকে বিদ্যুৎ বিল আদায়ে অগ্রণী ব্যাংক, রূপালী ব্যাংক, ব্যাংক এশিয়া, ওয়ান ব্যাংক, এনআরবি ব্যাংক সহ বিভিন্ন ব্যাংকের ১৯টি শাখা এই বিদ্যুৎ বিল আদায় করে থাকেন। বিল আদায়ের সময় নিয়ম রয়েছে গ্রাহকের চারশত টাকার উপরে বিল হলে প্রতিটি বিল কপিতে ১০ টাকার রাজস্ব টিকেট লাগাতে হবে, এবং রাজস্বের টাকাটা পল্লী বিদ্যুৎ অফিস ব্যাংকগুলোকে পরিশোধ করবে।
অভিযোগ রয়েছে সংশ্লিষ্ট ব্যাংকগুলো পল্লী বিদ্যুৎ অফিসে হিসাব দিয়ে রাজস্ব টিকেটের টাকাটা কেটে নিলেও বিলের কপিতে রাজস্ব টিকেট লাগাচ্ছে না। ফলে বছরে লাখ লাখ টাকার রাজস্ব থেকে সরকার বঞ্চিত হচ্ছে। গত রোববার সকালে সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, অগ্রণী ব্যাংক, দশঘরিয়া শাখা ও অগ্রণী ব্যাংক চাটখিল শাখা রাজস্ব টিকেট ছাড়াই বিদ্যুৎ বিল নিচ্ছে।
এ ব্যাপারে অগ্রণী ব্যাংক চাটখিল শাখার ব্যবস্থাপক নুর উদ্দিনের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, রাজস্ব টিকেটের সংকট রয়েছে, যখন রাজস্ব টিকেট পাওয়া যায় তখন বিদ্যুতের বিলে রাজস্ব টিকেট লাগানো হয়। তিনি আরো বলেন, টিকেট না থাকলেও বিলতো আদায় করতে হয়। তাই টিকেট ছাড়াও বিল আদায় করতে হয়।
এ ব্যাপারে চাটখিল পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (ডিজিএম) গোপাল চন্দ্র শিব এর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি আমাদের সময়কে বলেন, ব্যাংকগুলোকে নিয়ম মেনে চলার জন্য চিঠি দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply