মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকের ভেতরের ভিডিও ফুটেজ নিয়ে আলোচনা-বিতর্ক!

দূর্নীতি চিত্র

বেসরকারি ব্যাংক মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকের একটি ভিডিও ফুটেজ সামাজিক যোগাযোগমমাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে, যেখানে এক কর্মকর্তার কক্ষে একজনকে হাঁটু গেঁড়ে মাফ চাওয়ার ভঙ্গিমায় বসে থাকতে দেখা যাচ্ছে। তার ঠিক সামনেই চেয়ারে বা সোফায় বসা একজন তার দিকে পা বাড়িয়ে রেখেছেন। আশপাশে দাঁড়িয়ে আছেন আরও কয়েকজন। এমন ‘শাস্তির’ ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ার পর অনেকে বিষ্মিত হয়েছেন, ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

জানা গেছে, হাঁটু গেঁড়ে বসে থাকা ওই ব্যক্তিটি সাড়ে চার বছর ধরে মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকের মতিঝিল প্রিন্সিপাল শাখায় (ক্যাশ) চাকরি করতেন। কিন্তু ১০ লাখ টাকার একটি লেনদেনকে কেন্দ্র করে গত ২৮ আগষ্ট তাকে চাকরিচ্যুতম করা হয়। হারানো চাকরি ফিরে পেতেই তিনি তার উচ্চপদস্থ কর্মকর্তার কাছে এভাবে ‘ক্ষমা’ চাইছিলেন। যার কাছে ক্ষমা চেয়েছেন ওই চাকরিচ্যুত কর্মী, তিনি নিজেও ঘটনার কথা স্বীকার করেছেন। তবে ভিডিও করে যিনি ফেসবুকে ছড়িয়ে দিয়েছেন, তিনি কাজটি ভালো করেননি বলে উল্লেখ করেছেন তিনি।

মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক থেকে পরে জানানো হয়েছে, চাকরিচ্যুত ওই কর্মী একজন গ্রাহকের টাকা অত্মসাৎ করেছিলেন। তাই তাকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে।

ওই কক্ষের বাইরে থেকে ভিডিওটি করা হয়েছে। ফ্রস্টেড গ্লাস হওয়ার কারণে ভেতরের কারও চেহারা স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে না।

Leave a Reply